বুধবার, ২১ অগাস্ট ২০১৯, ০২:৩৭ পূর্বাহ্ন

এ রক্ত বেইমানি করতে জানে না: ডন

এ রক্ত বেইমানি করতে জানে না: ডন

নিউজটি শেয়ার করুন

নন্দিত সিলেট :: জননেত্রী শেখ হাসিনার সিদ্ধান্ত চূড়ান্ত বলে জানিয়েছেন আজিজুস সামাদ ডন। অন্য কোনো দলে বা জোটে যাওয়ার প্রশ্নই আসে না।

বাংলাদেশের প্রয়াত জাতীয় নেতা আব্দুস সামাদ আজাদের পুত্র আজিজুস সামাদ ডন। মনোনয়ন না পেলেও দলে তার যে অবস্থান আছে তাই ধরে রাখার ব্যাপারে তিনি দৃঢ় প্রতিজ্ঞ। কিছু কিছু সংবাদ মাধ্যমে মনোনয়ন না পেলে তিনি জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট বা স্বতন্ত্র থেকে নির্বাচন করবেন বলে যে সংবাদ প্রকাশ করছে তা দুরভিসন্ধি বলে উলে­খ করেছেন তিনি। এর ব্যাখ্যা দিতে সিলেটে কর্মরত প্রিন্ট ও ইলেকট্রনিক মিডিয়ার সাংবাদিকদের সাথে মতবিনিময় করেছেন। শনিবার রাতে নগরীর একটি অভিজাত রেস্টুরেন্টে এ মতবিনিময় করেন।

সুনামগঞ্জ- ৩ জগন্নাথপুর-দক্ষিণ সুনামগঞ্জ আসনটি মূলতঃ আওয়ামী লীগের স্থায়ী আসনগুলোর একটি। অনেকে মজা করে বলেন আওয়ামী লীগের খান্দানি আসন। আওয়ামী লীগের সাবেক প্রেসিডিয়াম সদস্য ও সাবেক পররাষ্ট্রমন্ত্রী, জাতীয় সংসদের সাবেক উপনেতা মরহুম আব্দুস সামাদ আজাদের সুবাদেই এ ঘাটি। তাঁর মৃত্যুর পর ২০০৮ সালের নির্বাচনে এ আসনে জয়লাভ করেন আওয়ামী লীগের প্রার্থী এমএ মান্নান। ২০১৪ সালের নির্বাচনেও তিনি জয়লাভ করেন। তাকে এ সময় অর্থ ও পরিকল্পনা প্রতিমন্ত্রীর দায়িত্ব দেওয়া হয়। তবে সেই নির্বাচনের বিশেষত্বও আছে। সেবার সামাদ পুত্র আজিজুস সামাদ ডন দলের মনোনয়ন চেয়ে ব্যর্থ হয়েছিলেন। তারপর স্বতন্ত্র থেকে নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করে সামান্য ভোটে হেরে যান। মূলত এ নির্বাচন থেকে এখনো কেউ কেউ আবারও বিদ্রোহী বা ঐক্যফ্রন্টের প্রার্থী হওয়ার কারণ খোঁজেন। তবে, এ নিয়ে বিভ্রান্ত না হওয়ার আহবান জানিয়ে ডন ২০১৪ সালের নির্বাচনে অংশগ্রহনের ব্যাপারটি ব্যাখ্যা করেন। সেবারও তার প্রার্থীতা দলের বিরুদ্ধে ‘বিদ্রোহ’ ছিলনা উল্লেখ করে তিনি বলেন, সেই নির্বাচনেও তিনি দলীয় ‘যথাযথ কর্তৃপক্ষের’ পরামর্শেই প্রার্থী হয়েছিলাম।

বললেন, তারা নিশ্চয় কোন ক্লু পেয়ে লিখছে বা কেউ তাদের বিভ্রান্ত করছে। তাছাড়া গত নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতার কথা মনে রেখেও লিখতে পারে। তাদের এসব লেখাকে দলীয় হাইকমান্ড কোন পাত্তা দিচ্ছেন না উল্লেখ করে আজিজুস সামাদ ডন বলেছেন, এসব নিয়ে আমি বা আমার দলীয় হাইকমান্ড মোটেও বিভ্রান্ত নয়। আমি তাদের সাথে বিশেষ করে দলীয় সাধারণ সম্পাদক সড়ক যোগাযোগ ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদেরের সাথে নিয়মিত যোগাযোগ করি।

দলীয় হাইকমান্ড চাইলে ঢাকায়ও সংবাদ সম্মেলন ডেকে নিজের অবস্থান ব্যাখ্যা করার প্রস্তাব দিলেও তারা ‘দরকার নেই’ বলে উড়িয়ে দিয়েছেন। মানে দল তার উপর আস্থাশীল। এ প্রসঙ্গে আজিজুস সামাদ ডন বলেন, বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সাথে আমার বাবার সম্পর্ক কি ছিলো, সারাদেশের মানুষ তা অবগত। আমার রক্তেও আওয়ামী লীগ। নেত্রীর প্রতি আমি সবসময় শ্রদ্ধাশীল। তিনি যে সিদ্ধান্ত নিবেন, তা অমান্য করার কোন অভিপ্রায় আমার নেই। কোনোকালেই তা ছিলনা। এবারও তার ব্যাতিক্রম হবেনা। সামাদ পুত্র আরও বলেন, নেত্রীর নির্দেশের বাইরে কখনো পা ফেলিনি। আমার রক্তে আওয়ামী লীগের আদর্শ মিশে আছে। দলীয় শৃঙ্খলার প্রতি বরাবর অনুগত ছিলাম, এখনও আছি। অপর এক প্রশ্নের জবাবে ডন বলেন, মনোনয়ন না পেলে দুটি কাজ করার আছে। অবসর নেওয়া বা আত্মহত্যা করা। কিন্তু রাজনীতি থেকে আসলে অবসর নেওয়া যায়না। আমিও অবসর নিবোনা। বাকী থাকলো আত্মহত্যা করা। আপনাদের কি মনে হয়, মনোনয়ন না পেলে আমি আত্মহত্যা করবো?

নিউজটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *







© All rights reserved © 2017 Nonditosylhet24.com
পোর্টাল বাস্তবায়নে : বিডি আইটি ফ্যাক্টরী লিঃ