শুক্রবার, ২৩ অগাস্ট ২০১৯, ০৮:১১ পূর্বাহ্ন

খালেদা জিয়ার আত্মজীবনী লেখা হচ্ছে

খালেদা জিয়ার আত্মজীবনী লেখা হচ্ছে

নিউজটি শেয়ার করুন

নন্দিত ডেস্ক :   বিএনপি চেয়ারপারসন ও সাবেক প্রধাপনমন্ত্রী বেগম খালেদা জিয়ার আত্মজীবনী প্রকাশের উদ্যোগ নিয়েছে তার দল। শুক্রবার এক অনুষ্ঠানে দলটির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর এ কথা জানান। তিনি বলেন, “তার (খালেদা জিয়া) ওপরে বই লেখা হচ্ছে। তার আত্মজীবনী লেখা হচ্ছে।

“আমি বিশ্বাস করি, সেই আত্মজীবনীতে আমরা এমন কিছু কিছু জিনিস পাব, যা অনেকেই জানি না।” বেগম খালেদা জিয়া বিএনপির নেতৃত্ব গ্রহণের ৩৪ বছরপূর্তির পরদিন এ খবর দিলেন মহাসচিব।

মহান স্বাধীনতার ঘোষক শহীদ প্রেসিডেন্ট জিয়াউর রহমান ১৯৭৮ সালে বিএনপি প্রতিষ্ঠা করেন। রাষ্ট্রপতি থাকাকালে ১৯৮১ সালের ৩০ মে কতিপয় বিপথগামী সামরিক কর্মকর্তাদের হাতে প্রেসিডেন্ট জিয়াউর রহমান চট্টগ্রাম সার্কিট হাউসে শহীদ হন। এরপর দলের নেতাকর্মীদের অনুরোধে রাজনীতিতে আসেন তার স্ত্রী বেগম খালেদা জিয়া।

১৯৮৩ সালে বেগম খালেদা জিয়া বিএনপির সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান নির্বাচিত হন। বিচারপতি আবদুস সাত্তার দায়িত্ব থেকে অবসর নিলে ১৯৮৪ সালে ১০ মে দলের চেয়ারপারসন হন তিনি।

মির্জা আলমগীর বলেন, “আজকে কী নির্মমভাবে, নিষ্ঠুরভাবে আমাদের তথাকথিত সরকারের অবৈধ প্রধানমন্ত্রী বারবার আমাদের নেত্রীকে ছোট করার চেষ্টা করেন। তিনি চেষ্টা করেন দেশের স্বাধীনতার ঘোষক শহীদ প্রেসিডেন্ট জিয়াউর রহমানকে ছোট করার, তিনি চেষ্টা করেন তরুণদের যে নেতা তারেক রহমানকে ছোট করার।

“ইতিহাস বহু তো প্রমাণ করেছে। আমি বলতে চাই, আবারো প্রমাণ করবে তাদের এই যে ছোট করার প্রবণতা এটা কখনোই জনগণ মেনে নেবে না। তারা তাদের নিজস্ব মহিমায় একদিন উজ্জ্বল হয়ে বেরিয়ে আসবেন।”

বেগম খালেদা জিয়ার রাজনৈতিক জীবন, স্বৈরাচারবিরোধী আন্দোলনসহ বিভিন্ন গণতান্ত্রিক আন্দোলনে তার ভূমিকা এবং প্রধানমন্ত্রী থাকাকালে দেশের উন্নয়ন অগ্রগতিতে, বিশেষ করে নারী শিক্ষাসহ অন্যান্য ক্ষেত্রে তার অবদানের কথা তুলে ধরেন মির্জা আলমগীর। অবিলম্বে বিএনপি চেয়ারপারসনের মুক্তির দাবিও জানান তিনি।

বেগম খালেদা জিয়ার নেতৃত্বের ৩৪ বছরপূর্তি উপলক্ষে নয়াপল্টনে দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে ‘দেশনেত্রীর রাজনীতি: সংগ্রাম ও সফলতা’ শিরোনামে এই আলোচনা সভা ও আলোকচিত্র প্রদর্শনী হয়। ১৯৮২ সাল থেকে এই পর্যন্ত বেগম খালেদা জিয়ার বর্ণাঢ্য রাজনৈতিক জীবনের নানা সময়ের আলোকচিত্র এতে স্থান পায়। এই প্রদর্শনীর আয়োজন করেছে ন্যাশনালিস্ট রিসার্চ সেন্টার নামে একটি গবেষণা সংস্থা।

দলের সহসাংগঠনিক সম্পাদক শহিদুল ইসলাম বাবুলের পরিচালনায় আলোচনা সভায় বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা কাউন্সিলের সদস্য আমানউল্লাহ আমান, জ্যেষ্ঠ যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী আহমেদ, সহসাংগঠনিক সম্পাদক আবদুস সালাম আজাদ, ন্যাশনালিস্ট রিসার্চ সেন্টারের সদস্য আলোকচিত্রী বাবুল তালুকদার বক্তব্য রাখেন।

নিউজটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *







© All rights reserved © 2017 Nonditosylhet24.com
পোর্টাল বাস্তবায়নে : বিডি আইটি ফ্যাক্টরী লিঃ