বুধবার, ২৩ অক্টোবর ২০১৯, ০৯:২৯ পূর্বাহ্ন

চুনারুঘাটে শিক্ষিকা ও ২ ছাত্রীকে পিটিয়ে আ.লীগ নেতা জেলে

চুনারুঘাটে শিক্ষিকা ও ২ ছাত্রীকে পিটিয়ে আ.লীগ নেতা জেলে

নিউজটি শেয়ার করুন

হবিগঞ্জ প্রতিনিধি:হবিগঞ্জের চুনারুঘাট উপজেলার গোলগাঁও সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষিকা ও দুই ছাত্রীকে পিটিয়ে আহত করেছেন স্কুল দপ্তরী ও তার চাচা আওয়ামী লীগ নেতা। এ ঘটনায় পুলিশ আব্দুল হামিদ ওরফে ফুল মিয়াকে আটক করেছে।

বৃহস্পতিবার দুপুর আড়াইটায় উপজেলা পরিষদ কমপ্লেক্স থেকে তাকে আটক করা হয়। ফুল মিয়া গোলগাঁও এলাকার বাসিন্দা এবং উপজেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি।

আহতরা হলেন- প্রধান শিক্ষিকা শাহিনা আক্তার (৪০), গোলগাঁও সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ৫ম শ্রেণির ছাত্রী ও আব্দুল হান্নান রমিজের মেয়ে সাদিয়া আক্তার (১০) এবং ৪র্থ শ্রেণির ছাত্রী ও শাহজাহান মিয়ার মেয়ে শারফিন আক্তার (৯)। তারা চুনারুঘাট উপজেলা স্বাস্থ্যকমপ্লেক্সে চিকিৎসা নিয়েছেন।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, বৃহস্পতিবার সকাল ১১টায় নিয়মিত স্কুলে না আশার অভিযোগে এক ছাত্রীকে মারপিট করেন বিদ্যালয়ের দপ্তরী জুয়েল মিয়া। এ নিয়ে বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষকের সাথে তার কথা কাটাকাটি হয়। এর জের ধরে ঘটনাস্থলে আসেন দাতা সদস্য, স্কুল কমিটির সাবেক সভাপতি আব্দুল হামিদ ফুল মিয়া।
আহত প্রধান শিক্ষিকা ও দুই ছাত্রী

বিষয়টি নিয়ে ফুল মিয়ার সাথে কথা কাটাকাটির এক পর্যায়ে জুয়েল ও ফুল মিয়া প্রধান শিক্ষিকাকে মারপিট করেন। এসময় উল্লেখিত দুই ছাত্রী এ ঘটনার প্রতিবাদ করায় ক্ষিপ্ত হয়ে তাদেরকেও মারপিট করেন জুয়েল ও ফুল মিয়া। খবর পেয়ে স্থানীয়রা এসে আহত তিনজনকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যান। পরে দুপুর আড়াইটায় উপজেলা পরিষদ কমপ্লেক্স বিষয়টি সমাধান করতে আসেন ফুল মিয়া। উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কার্যালয়ে এ নিয়ে বৈঠকও বসে। কিন্তু বৈঠকে বিষয়টি সমাধান না হওয়ায় এবং বিক্ষোব্দ শিক্ষকদের চাপে ফুল মিয়াকে আটক করে নিয়ে আসে চুনারুঘাট থানা পুলিশ।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক স্থানীয় কয়েকজন জানান, নিজেকে সেনাবাহিনীর মেজর পরিচয় দিয়ে এলাকায় প্রভাব বিস্তার করে আসছিলেন ফুল মিয়া। শিক্ষিকা ও ছাত্রীদেরকে মারপিটের উপযুক্ত বিচার দাবি জানিয়েছেন তারা।

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে চুনারুঘাট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শেখ মো. নাজমুল হক জানান, হামলাকারী ও ফুল মিয়াকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। এ ব্যাপারে মামলার প্রস্তুতি চলছে।

চুনারুঘাট উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা মো. মাসুদ রানা বলেন, ফুল মিয়া একজন খারাপ প্রকৃতির লোক বলে এলাকাবাসী জানান। শিক্ষকরা তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহনের দাবি জানালে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার নির্দেশে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে প্রধান শিক্ষক চুনারুঘাট থানায় একটি মামলা দায়ের করছেন।

নিউজটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *







© All rights reserved © 2017 Nonditosylhet24.com
পোর্টাল বাস্তবায়নে : বিডি আইটি ফ্যাক্টরী লিঃ