বুধবার, ২৩ অক্টোবর ২০১৯, ০৮:১১ পূর্বাহ্ন

জীবন দাস হত্যায় আদালতে মনিরের স্বীকারোক্তি

জীবন দাস হত্যায় আদালতে মনিরের স্বীকারোক্তি

নিউজটি শেয়ার করুন

দিরাই প্রতিনিধি: সুনামগঞ্জের দিরাইয়ের বহুল আলোচিত জীবন দাস হত্যা মামলার অন্যতম আসামী মনির কে গ্রেফতার করেছে দিরাই থানা পুলিশ। বুধবার আদালতে ঘাতক মনির জীবন দাস খুনের সাথে জড়িত উল্লেখ করে আদালতে স্বীকারোক্তিমুলক জবানবন্দি দিয়েছে বলে জানিয়েছেন মামলার তদন্তকারী কর্মকর্ত এ্এস আই ইসমাইল আলী।

মনির জীবন দাস হত্যা মামলার প্রধান আসামী রাজনের অন্যতম সহযোগী উপজেলার ধাইপুর গ্রামের সামছুৃ মিয়ার ছেলে। দিরাই থানার ওসি কে এম নজরুল জানান, তথ্য প্রযুক্তির মাধ্যমে আসামী মনিরের অবস্থান নির্ধার করলে এস আই ইসমাইল সঙ্গীয় ফোর্সসহ সোমবার শ্রীমঙ্গল থানার মির্জাপুর বাজার থেকে মনিরকে গেস্খফতার করে এবং দিরাই থানায় নিয়ে আসে, জীবনদাস হত্যাকান্ডের বিষয়ে ব্যাপক জিজ্ঞাসাবাদের পর বুধবার সকালে ঘাতক মনিরকে আদালতে প্রেরন করা হয় ।

পুলিশ জানায়, নারী সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরেই রাজন তার সহযোগী মনিরসহ তার বাহিনীর সহযোগীতায় বিগত ২৬ মে গ্রামের বাড়ি বোয়ালিয়া বাজার থেকে ডেকে নিয়ে জীবন দাসকে খুন করে।

২ জুন বিবিয়ানা নদী থেকে জীবন দাসের মৃতদেহ উদ্ধার করা হয়। জীবন দাসের লাশ পাওয়ার দুইদিন পর ৪ জুন তার বড় ভাই লিটন দাস বাদী হয়ে কুলঞ্জ গ্রামের নুর ইসলামের ছেলে পুর্বাঞ্চলের ত্রাস একাধিক মামলার পলাতক আসামী রাজন মিয়াসহ অজ্ঞাতনামা ৭/৮জনকে আসামী করে দিরাই থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করে।

মামলা দায়েরের পর থেকেই ঘাতক রাজন ও মনির সহ ৭/৮জন এলাকা ছেড়ে গা ঢাকা দেয়। পুলিশ তথ্য প্রযুক্তির মাধ্যমে জীবন দাস খুনের সাথে জড়িত মনিরকে গ্রেফতার করতে সক্ষম হলেও প্রধান আসামী রাজনসহ অন্যান্য আসামীরা পলাতক রয়েছে।

নিউজটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *







© All rights reserved © 2017 Nonditosylhet24.com
পোর্টাল বাস্তবায়নে : বিডি আইটি ফ্যাক্টরী লিঃ