শনিবার, ১৭ অগাস্ট ২০১৯, ০৭:২৪ অপরাহ্ন

মহিলাদের মাথায় আর কতটুকু বুদ্ধি থাকবে!

মহিলাদের মাথায় আর কতটুকু বুদ্ধি থাকবে!

নিউজটি শেয়ার করুন

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: ভারতশাসিত কাশ্মীরের নিম্নআদালতে কাঠুয়ায় শিশুকন্যা আসিফা গণধর্ষণ ও হত্যা মামলার বিচার চলছে। এর মধ্যে ধর্ষকদের আইনজীবীরা আদালতে নতুন বিতর্কের জন্ম দিয়েছেন।

তদন্তকারী দলের একমাত্র মহিলা পুলিশ অফিসার ডিএসপি শ্বেতাম্বরী শর্মাকে উদ্দেশ্য করে অভিযুক্তদের আইনজীবী অঙ্কুর শর্মা বলেন, উনি একজন মহিলা। মাথায় কত আর বুদ্ধি থাকবে!-খবর আনন্দবাজারপত্রিকা অনলাইন।

পাঁচ ধর্ষকের হয়ে আদালতে শুনানিতে গিয়ে ওই আইনজীবী শ্বেতাম্বরীকে এভাবে বিদ্রুপ করেন।

একটি শিশুকন্যাকে গণধর্ষণ ও খুনের ঘটনা নিয়ে চলা মামলার মহিলা তদন্তকারী কর্মকর্তা সম্পর্কে কোনো আইনজীবীর এ মন্তব্য মানুষের মনে ব্যাপক ক্ষোভের জন্ম দিয়েছে।

ওই পুলিশ কর্মকর্তা সাংবাদিকদের বলেন, মহিলা বলেই কেউ যদি আমার বুদ্ধিমত্তা নিয়ে প্রশ্ন তোলেন, তা হলে আঘাত পেতে হয়। তবে আমি নয়, গোটা দেশ এর জবাব দেবে।

শ্বেতাম্বরী জানান, কাঠুয়ায় অভিযুক্তদের পক্ষ নিয়ে বিক্ষোভ চলছে। প্রমাণ জোগাড় করতে আর সাক্ষ্য পেতে বেগ পেতে হচ্ছে তাদের।

তবে কাঠুয়া কাণ্ডে জম্মু-কাশ্মীরের আইনজীবীরা যেভাবে বিচারের প্রক্রিয়ায় বাধা দিয়েছেন, তা নিয়ে ক্ষোভ জানিয়েছেন সুপ্রিমকোর্ট। আদালত জানিয়েছেন, কোনোভাবেই বিচারের প্রক্রিয়া আটকানো যাবে না।

জম্মু হাইকোর্ট বার অ্যাসোসিয়েশনও শীর্ষ আদালতে জানিয়েছেন, কাঠুয়ার আইনজীবীদের ওই অবস্থানকে তারা সমর্থন করে না। কাঠুয়ার অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা না নেয়ার দাবি তুলে সেখানকার আইনজীবীদের সংগঠন আগেই পথে নেমেছিল।

ভারতের শীর্ষ আদালত জানিয়েছেন, নির্যাতিত কিংবা অভিযুক্ত— কোনো পক্ষের আইনজীবীকেই মামলার কাজে আটকাতে পারে না বার অ্যাসোসিয়েশন।

 

নিউজটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *







© All rights reserved © 2017 Nonditosylhet24.com
পোর্টাল বাস্তবায়নে : বিডি আইটি ফ্যাক্টরী লিঃ