সোমবার, ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ০৪:৩৯ পূর্বাহ্ন

মোবাইল ফোন বিচ্ছেদের কারণ, বলছে গবেষণা

মোবাইল ফোন বিচ্ছেদের কারণ, বলছে গবেষণা

নিউজটি শেয়ার করুন

লাইফস্টাইল ডেস্ক:সম্প্রতি সময়ে অহরহ ঘটছে বিচ্ছেদের ঘটনা। মনের সঙ্গে শরীর এই দুইয়ের ঠিক মিলমিশই বিশ্বের যে কোনও সুস্থ ও স্বাভাবিক বিবাহিত সম্পর্কের বুনিয়াদ। তবে বিভিন্ন কারণে সৃষ্টি হচ্ছে দাম্পত্য কলহ, ভেঙে যাচ্ছে সংসার।

সাম্প্রতিক গবেষণা বলছে, যৌনজীবনে নিরাসক্তি ও বিছানায় অনীহা বিশ্বের প্রায় সব দেশের দম্পতিদের মধ্যেই দেখা দিচ্ছে। আর তার মূলে রয়েছে স্মার্টফোন!

সম্প্রতি এক মার্কিন তথ্যপ্রযুক্তি সংস্থার গবেষণায় উঠে এল এমনই চমকপ্রদ তথ্য! লিভ ইন হোক বা বিবাহিত সম্পর্ক— সব ক্ষেত্রেই যৌনজীবনে বড় বাধা হয়ে দাঁড়াচ্ছে বেডরুমেও স্মার্টফোনের হাতছানি।

সোশ্যাল মিডিয়ার এই মোহ পাশ কেটে সঙ্গীর দিকে মন দেওয়ার সময়ই থাকছে না। এমনকি সদ্য বিবাহিতরাও বাদ নন এই তালিকা থেকে। তৈরি হচ্ছে নানা সামাজিক ও সাংসারিক জটিলতা।

আমেরিকার বিভিন্ন প্রদেশ থেকে প্রায় ২ হাজার দম্পতির ওপর সমীক্ষা চালালে দেখা যায়, তাদের প্রায় তিন-চতুর্থাংশই একান্ত নিজস্ব সময়ও রতিক্রীড়ার চেয়ে বেশি ব্যস্ত থাকেন মোবাইল ফোনে। শুধু তা-ই নয়, নারী-পুরুষ নির্বিশেষ অধিকাংশের দাবি, ঘুমোতে যাওয়ার আগে তাদের প্রেমিক বা জীবনসঙ্গীর মুখ নয়, মোবাইল দেখেই চোখ বুজেন তারা।

পরীক্ষায় অংশ নেওয়া প্রায় ৫৫ শতাংশের মত, কেবল যৌনজীবনই নয়, অত্যধিক ফোন ব্যবহারের কারণেই নিজেদের জীবনসঙ্গীর সঙ্গে স্বাভাবিক সম্পর্কও ব্যাহত হচ্ছে। ৩৫ শতাংশ জানাচ্ছে, মোবাইল আসক্তির কারণে তাদের মধ্যে বিশেষ কোনও শারীরিক সম্পর্ক নেই বহু দিন ধরেই।

মানুষ নিজেকে নিয়ে এত বেশি ব্যস্ত হয়ে পড়ছে যে সেখানে সামাজিক বন্ধন, দায়-দায়িত্ব এমনকি সন্তানের দায়ভারও ফিকে হয়ে আসছে। নিজের জগৎ, নিজস্ব ব্যস্ততা ও জীবনের দ্রুততার সঙ্গে খাপ খাওয়াতে গিয়ে বাড়ছে অবসাদ।

নিউজটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *







© All rights reserved © 2017 Nonditosylhet24.com
পোর্টাল বাস্তবায়নে : বিডি আইটি ফ্যাক্টরী লিঃ