শনিবার, ২৪ অগাস্ট ২০১৯, ০৭:১৫ অপরাহ্ন

‘ষড়যন্ত্র করে আমাকে রাজনীতি থেকে দূরে রাখা হয়েছে’

‘ষড়যন্ত্র করে আমাকে রাজনীতি থেকে দূরে রাখা হয়েছে’

নিউজটি শেয়ার করুন

মৌলভীবাজার প্রতিনিধি : সাবেক ডাকসুর ভিপি, জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের কেন্দ্রীয় নেতা সুলতান মোহাম্মদ মনসুর আহমদ বলেন, আমি আপনাদের সন্তান। দীর্ঘদিন থেকে মিথ্যা অভিযোগ ও ষড়যন্ত্র করে আমাকে রাজনীতি থেকে দূরে রাখার অপচেষ্টা করা হয়েছে। কিন্তু আমি দমে যাইনি।

শুক্রবার (৩০ নভেম্বর) দুপুরে সিলেটের হযরত শাহ জালাল (রঃ), শাহপরান (র:) মাজার ও বাবা মায়ের কবর জিয়ারত শেষে তিনি তাঁর নির্বাচনী এলাকা মৌলভীবাজার-২ (কুলাউড়া) এর বাসিন্দাসহ দেশবাসীর কাছে দোয়া চান।

এ সময় ভোটারদের উদ্দেশ্যে সুলতান মনসুর বলেন, আমি আপনাদের কল্যাণে দেশবাসীর সেবায় রাজনীতিতে বেঁচে আছি। শেষ জীবনেও আমার জন্ম মাটি ও দেশবাসীর কল্যাণে কাজ করে যেতে চাই। এটা আমার রাজনৈতিক জীবনের দৃঢ় প্রত্যয়। সে জন্য আপনাদের মহামূল্যবান ভোটের মাধ্যমে আমাকে সুযোগ দিন। আমি আপনাদের সন্তান, ভাই, ভাতিজা ও স্বজন। আমি আপনাদের ভালোবাসা দোয়া, আর্শীবাদ, সমর্থন ও সহযোগিতা চাই। করেন।

ঐক্যফ্রন্ট নেতা বলেন, দেশে চরম ক্রান্তিলগ্ন যাচ্ছে। দেশে এখন গণতন্ত্র, আইনের শাসন ও বাকস্বাধীনতা নেই বললেই চলে। বিরোধী মত ও পথের কোন মানুষই আজ নিরাপদে নেই। দেশ থেকে নানা ভাবে হাজার হাজার কোটি টাকা পাচার হচ্ছে। উন্নয়নের নানা উৎসগুলো ধ্বংস করা হয়েছে। দেশ প্রেমিক নির্ভিক ৫৭ জন সেনা অফিসারকে পিলখানায় নির্মমভাবে হত্যা করা হয়েছে। শাপলা চত্ত্বরে রাতের অন্ধকারে আলেম উলামাদের হত্যা করা হয়েছে।

তিনি বলেন, প্রশাসনকে আয়ত্বে নিয়ে দেশে আইনের শাসনকে ভূ-লুন্ঠিত করা হয়েছে। আত্মীয়করণ, দলীয়করণ আর সরকারের মদদে দেশে দুর্নীতির মহোৎসব চলেছে। ব্যাংকের রিজার্ভ থেকে কয়লা খনি লুটপাট থেকে বাদ যায়নি কোন কিছুই। সরকারের এমন অপকর্মের বিরুদ্ধে কেউ কথা বলতে পারে না। প্রতিবাদও জানাতে পারে না। যে সাহস করে প্রতিবাদী হয় সেই গুম খুন অপহরণের স্বীকার হয়। আর না হয় মিথ্যা হয়রানি ও গায়েবী মামলায় কারাগারের অন্ধ প্রকোষ্টে মাসের পর মাস থাকতে হয়। পথে ঘাটে ডুবায় বেওয়ারিশ লাশ মেলে। দেশে বিচার বর্হিভূত হত্যাকণ্ডি এ যেন নিত্য নৈমিত্তিক ঘটনা।

তিনি আরো বলেন, ভোটারবিহীন এ সরকার দেশকে ধ্বংস করে দিয়েছে। তাই ভোটারবিহীন জালিম এই সরকারকে দেশবাসীর স্বার্থে দেশের উন্নয়ন, গণতন্ত্র আইনের শাসন প্রতিষ্ঠায় ও সকল রাজবন্দীদের মুক্তির প্রেক্ষিত ৩০ ডিসেম্বরের ভোটের মাধ্যমে বিদায় জানাতে হবে।

নিউজটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *







© All rights reserved © 2017 Nonditosylhet24.com
পোর্টাল বাস্তবায়নে : বিডি আইটি ফ্যাক্টরী লিঃ