সোমবার, ১৬ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ১০:০৯ পূর্বাহ্ন

সুলতান মনসুরকে হারানোর মিশনে প্রচারণায় ব্যস্ত কুলাউড়া আ’লীগ

সুলতান মনসুরকে হারানোর মিশনে প্রচারণায় ব্যস্ত কুলাউড়া আ’লীগ

নিউজটি শেয়ার করুন

মৌলভীবাজার প্রতিনিধি : সবার একটাই মিশন- ‘নৌকা’ জেতাতে হবে, সুলতান মনসুরকে হারাতে হবে। তাই তো হুমড়ি খেয়ে ভোটের মাঠে প্রচার-প্রচারণায় ব্যস্ত কুলাউড়া আওয়ামী লীগ। উপজেলার এদিক হতে ওইদিক, সকাল থেকে গভীর রাত অবধি পৃথক-পৃথক স্থানে গণ সংযোগ আর উঠান বৈঠককে গুরুত্ব দিচ্ছেন দলের নেতৃবৃন্দ। সাথে মহাজোটের মনোনীত প্রার্থী, বিকল্পধারার প্রেসিডিয়াম সদস্য এম এম শাহীনের নির্বাচনী কার্যক্রম নানা কৌশলে পরিচালনা করছেন আ’লীগের নেতারা।

কুলাউড়া আ’লীগের নেতাদের নির্বাচনী কার্যক্রমের সরাসরি খবরদারী করছে দলের হাইকমান্ড।

ব্যক্তি ইমেজকে গুরুত্বে দিয়ে ইউনিয়ন ভিত্তিক দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে আ’লীগের নেতাদের। উপজেলার ১৩টি ইউনিয়ন এবং ১টি পৌরসভার দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে মোট ১৪ জন আ’লীগ নেতাকে। সাথে তদারকির জন্য আরও নেতা-কর্মী রয়েছে। গণসংযোগ আর উঠান বৈঠকে সময় দিচ্ছেন আরও পৃথক পৃথক আ’লীগের গ্রুপ।

এদিকে নৌকার বিজয় নিশ্চিত করতে ভোটের মাঠে নেমেছে কুলাউড়া উপজেলা আ’লীগ। স্থানীয় নেতৃবৃন্দ সরকারের নানা মূখী উন্ননের চিত্র তুলে ধরে ভোটারদের আকৃষ্ট করতে ব্যস্ত সময় পার করছেন। সবমিলিয়ে ভোটের মাঠে লড়াই করে সুলতান মনসুরকে টক্কর দিতে ঘুম হারাম আ’লীগ নেতাদের। পক্ষান্তরে সরকারী বিরোধী বক্তব্য বেশি প্রাধান্য পাচ্ছে সুলতান মনসুরের সভাজুড়ে।

কুলাউড়ায় ব্যক্তি নয় এখানে নৌকা প্রতীক ফ্যাক্টর বলে মনে করেন তরুণ ভোটর ও সাবেক ছাত্রলীগ কর্মী মোহাম্মদ আলী চৌধুরী তরিক। তিনি বলেন- নৌকার পাশাপাশি এম এম শাহীনের নিজস্ব একটি ব্যক্তি ইমেজ রয়েছে। সব মিলিয়ে নৌকা বিজয়ী হবে নিশ্চিত।

বরমচাল ইউনিয়নের দায়িত্বে থাকা আ’লীগ নেতা অধ্যক্ষ সিপার উদ্দিন আহমদ বলেন-‘আ’লীগ সরকার দেশে অনেক উন্নয়ন করেছে। কুলাউড়ায় সাড়ে ২২শত কোটি টাকার উন্নয়ন হয়েছে বর্তমান সরকারের অধীনে। সাধারণ মানুষদের এসব উন্নয়নে আকৃষ্ট করে নৌকায় ভোট চাচ্ছে কুলাউড়া আ’লীগ ও অঙ্গসহযোগী সংগঠনের নেতা-কর্মী। কুলাউড়া আ’লীগের সাধারণ সম্পাদক রফিকুল ইসলাম রেনুর নেতৃত্বে প্রতিটি নেতা-কর্মী জান-প্রাণ দিয়ে নৌকার পক্ষে মাঠে আছে।’

কুলাউড়া উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও আওয়ামী লীগ নেতা আসম কামরুল ইসলাম বলেন-‘কুলাউড়া উপজেলা আ’লীগের একটাই মিশন ‘নৌকা বিজয়ী’ করা। সকাল থেকে রাত পর্যন্ত আ’লীগ ও অঙ্গসহযোগী সংগঠনের নেতা-কর্মীরা ভোটের মাঠে কাজ করছে।’

কুলাউড়া উপজেলা আ’লীগের সাধারণ সম্পাদক রফিকুল ইসলাম রেনু বলেন-‘শেখ হাসিনার দেয়া নৌকা এবার বিপুল ভোটে বিজয়ী হবে। কুলাউড়া উপজেলা আ’লীগে নেতা-কর্মীরা দিনরাত পরিশ্রম করছে ভোটের মাঠে। সাধারণ মানুষ নৌকাকেই কাছে টানছেন।’

নিউজটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *







© All rights reserved © 2017 Nonditosylhet24.com
পোর্টাল বাস্তবায়নে : বিডি আইটি ফ্যাক্টরী লিঃ